একাদশ শ্রেণির ভর্তির সময়সীমা বেড়েছে

একাদশ শ্রেণির ভর্তির সময়সীমা বেড়েছে

একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির সময়সীমা আরও দুই দিন বাড়ানো হয়েছে। ১৩, ১৪ এবং ১৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত শিক্ষার্থীদের ভর্তির  সুযোগ দেয়ার কথা থাকলেও সে সময় বাড়িয়ে ১৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত করা হয়েছে। একই সঙ্গে ভর্তিতে প্রাথমিকভাবে একাডেমিক ট্রান্সক্রিপ্ট বা প্রশংসাপত্র জমা করতে হবে। চলমান করোনা মহামারীর পরিস্থিতি স্বাভাবিক হওয়ার পর এসব কাগজ কলেজে জমা দিতে পারবেন শিক্ষার্থীরা। গতকাল মঙ্গলবার এ সংক্রান্ত একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে আন্ত:শিক্ষা বোর্ড সমন্বয় উপ কমিটি।

কমিটির সভাপতি ও ঢাকা বোর্ডের চেয়ারম্যান মু. জিয়াউল হক স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ মহামারির কারণে স্বাস্থ্য বিধি অনুসরণের লক্ষ্যে ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণিতে ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে একাডেমিক ট্রান্সক্রিপ্ট, প্রশংসাপত্রসহ কোন প্রকার প্রামাণ্যপত্র জমা নেয়ার প্রয়োজন নেই। একই কারণে পূর্ব নির্ধারিত ভর্তির সময়সীমা ১৩, ১৪ এবং ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে বৃদ্ধি করে ১৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত করা হলো।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়েছে, কোভিড-১৯ মহামারির উন্নতি হলে সুবিধামত সময়ে সত্যায়িত একাডেমিক ট্রান্সক্রিপ্ট, প্রশংসাপত্রসহ প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা নিতে বলা হয়েছে। তবে কোটা পাওয়া শিক্ষার্থীদেরকে অবশ্যই কোটাপ্রাপ্তি উপযুক্ত প্রমাণ সনদ দাখিল করে ভর্তি হতে হবে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে।

জানা গেছে, একাদশ শ্রেণিতে ভর্তির প্রথম ধাপে ১৩ লাখ ৪২ হাজারের বেশি আবেদন পড়লেও পছন্দের কলেজে মনোনয়ন পেয়েছিল ১২ লাখ ৭৭ হাজার ৭২১ জন শিক্ষার্থী। দ্বিতীয় ধাপের আবেদন ও প্রথম ধাপের মাইগ্রেশনের পর আরও ২ লাখ ৪০ হাজার ৬৫৭ জন শিক্ষার্থী একাদশ শ্রেণিতে বিভিন্ন কলেজে ভর্তির মনোনয়ন পেয়েছে। তৃতীয় পর্যায়ের আবেদন গ্রহণ চলেছে ৭ ও ৮ সেপ্টেম্বর। পছন্দক্রম অনুযায়ী ২য় মাইগ্রেশনের ফল এবং ৩য় পর্যায়ের আবেদনের ফল ১০ সেপ্টেম্বর রাত ৮টায়। তৃতীয় পর্যায়ে শিক্ষার্থীর সিলেকশন নিশ্চায়ন করতে হবে ১১ সেপ্টেম্বর থেকে ১২ সেপ্টেম্বর রাত ৮টা পর্যন্ত। সিলেকশন নিশ্চায়ন না করলে আবেদন বাতিল বলে গণ্য হবে আর কলেজভিত্তিক চূড়ান্ত ফল প্রকাশ হবে ১৩ সেপ্টেম্বর সকাল ৮টায়। আর বর্ধিত সময় অনুসারে শিক্ষার্থীরা ১৭ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত কলেজে ভর্তির সুযোগ পাবেন। এর আগে গত ৯ আগস্ট সকাল সাতটা থেকে ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণিতে অনলাইন ভর্তির কার্যক্রম শুরু হয়।

উল্লেখ্য, গত ৯ আগস্ট সকাল সাতটা থেকে ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে একাদশ শ্রেণিতে অনলাইন ভর্তির কার্যক্রম শুরু হয়। ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে ভর্তি কার্যক্রম শেষ হবে। চলতি বছর ৯টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ড, মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে মোট পরীক্ষায় অংশ নেয় ২০ লাখ ৪০ হাজার ২৮ জন শিক্ষার্থী। এর মধ্যে ১৬ লাখ ৯০ হাজার ৫২৩ জন শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছিলেন।

দেশ বাংলা নিউজ

দেশ বাংলা নিউজ

Related articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *